শিরোনাম:
●   মিয়ানমারে সেনা ঘাঁটি দখল করে আগুন ধরিয়ে দিল বিদ্রোহীরা ●   বিসিএস ক্যাডার পরিচয়ে এক ডজন বিয়ে করলো তরুণী ●   রিকশাচালকের ৬০০ টাকা কেড়ে নেয়ায় পুলিশের তিন সদস্য সাময়িক বরখাস্ত! ●   চিলাহাটিতে অসহায় মানুষদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী, বস্ত্র ও টাকা বিতরণ ●   নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পৃথিবীর দিকে তীব্র গতিতে ধেয়ে আসছে চীনা রকেটের ১০০ ফুট অংশ ●   কুষ্টিয়া পৌরসভার কর কর্মকর্তা বরখাস্ত নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম ইসলাম ওএসডি ●   পুলিশকে চাঁদা দিয়ে না খেয়ে রোজা রাখলেন রিকশাওয়ালা ●   একাধিক নারীর সঙ্গে বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্ক ছিল হেফাজত নেতা জাকারিয়ার ●   রাতভর আয়ের ৬০০ টাকা নিয়ে গেল পুলিশ, খালি হাতে বাড়ি ফিরলো রিকশাচালক শামীম ●   এসআই আকবরের মৃ’ত্যুদ’ণ্ড হতে পারে!
ঢাকা, সোমবার, ১০ মে ২০২১, ২৭ বৈশাখ ১৪২৮

Bijoynews24.com
সোমবার, ৪ মে ২০২০
প্রথম পাতা » জাতীয় সংবাদ | জীব-বৈচিত্র | বক্স্ নিউজ | শিরোনাম » কাপাসিয়ায় হঠাৎ সাপের পা দেখা এবং সাপের পা নিয়ে চলছে নানা গবেষণা
প্রথম পাতা » জাতীয় সংবাদ | জীব-বৈচিত্র | বক্স্ নিউজ | শিরোনাম » কাপাসিয়ায় হঠাৎ সাপের পা দেখা এবং সাপের পা নিয়ে চলছে নানা গবেষণা
সোমবার, ৪ মে ২০২০
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

কাপাসিয়ায় হঠাৎ সাপের পা দেখা এবং সাপের পা নিয়ে চলছে নানা গবেষণা

---মামুনূর রশিদ, স্পেশাল রির্পোটার: আমাদের সমাজে সাপ নিয়ে নানা ধরনের লোমহর্ষক কথা প্রচলিত আছে। সাপ দেখে ভয় পেলেও সাপ নিয়ে কৌতূহল আছে সব মানুষের।  সাপের পাঁচ পা দেখার প্রবাদটি খুব পরিচিত ও বহুল ব্যবহৃত একটি প্রবাদ। ছাত্র জীবনে বাংলা ব্যাকরণ বইতে আমরা অনেক বাগধারা পড়েছি। এর মধ্যে একটি বাগধারা ছিলো -সাপের পাঁচ পা দেখা। সাপের পাঁচ পা দেখার অর্থ হলো অর্থহীন কথা, দর্প করা। এত দিন আমরা জানতাম সাপের পাঁচ পা দেখা একটি কথার কথা। সাপের আবার পা আছে নাকি- এমনটাই আমরা এতো দিন জেনে এসেছি। সাপের পাঁচ পা কোন মানুষ নিজ চোখে দেখেছে বলেও শোনা যায়নি। সাপের পা নেই বলেই সে বুকে ভর করে চলাচল করে। এটাই এতকাল দেখে আসছি। কাপাসিয়ায় সাপের পা দেখাঃ সাপের পা আছে এমন কথা শুনলে অবাক হওয়ারই কথা। কিন্তু সাপের পা নেই এসব কথা মিথ্যা প্রমাণিত করে বাস্তবেই সাপের পা এর দেখা মিলেছে গাজীপুর জেলার কাপাসিয়া উপজেলায়।

গত ৩০ এপ্রিল ২০২০, কাপাসিয়া উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাবুর গ্রামের মানুষ সাপের পা এর সন্ধান পেয়েছে।ওই দিন সকালে পাবুর গ্রামের দেওয়ান ও খান বাড়ি সংলগ্ন একটি টেকে স্থানীয় এক কৃষক বিরল প্রজাতির বড় আকারের সাপ দেখতে পেয়ে সাপ সাপ বলে চিৎকার দিয়ে উঠে। পরে গ্রামের হেলাল উদ্দীন সহ লোকজন লাঠিসোঁটা নিয়ে সাপের পিছনে ধাওয়া করে এবং একপর্যায়ে সাপটিকে মারতে সক্ষম হয়। এই সাপটি লম্বায় ছিলো ১২ ফুট।

সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হলো সাপটির ছিলো দুটি দৃশ্যমান পা। সে দিন এই সাপের পা দেখার জন্য অনেক উৎসুক মানুষ ভীড় করেছিল। এলাকার মানুষ সাপের পায়ের কথাই এত দিন শুনে এসেছে। জীবনে এই প্রথম সত্যি সত্যি সাপের পা দেখে বিশ্বাস করেছে মানুষ। অনেকে সাপের পা আছে বিশ্বাস করতে পারছেন আবার কেউ কেউ এটাকে সাপের পা বলতে নারাজ। অনেকে পা সদৃশ অঙ্গটাকে সাপের যৌনাঙ্গ বলে মত প্রকাশ করেছেন। তাদের ধারণা সাপটি একটি পুরুষ শ্রেণির। সেক্সচুয়াল বা সঙ্গম চলাকালীন সময়ে সাপটিকে মারা হয়েছে। এ কারণে যৌনাঙ্গ ভিতরে প্রবেশ করতে পারেনি। সাপের পা নিয়ে নানা গবেষণার কথাঃ সাপের পা নেই। এতো দিন মানুষ এটাই জানতেন। সাপের পা নিয়ে দীর্ঘদিন যাবতই মানুষ অনুসন্ধান চালিয়ে আসছেন।সম্প্রতি সাপের পায়ের রহস্য ও উদঘাটিত হয়েছে। যুক্তরাজ্যের ইউনিভার্সিটি অব এডিনবরা ও যুক্তরাষ্ট্রের আমেরিকান মিউজিয়াম অব ন্যাচারাল হিস্টরি সম্প্রতি সিটি স্ক্যানিং প্রযুক্তি ব্যবহার করে সাপের পা রহস্যের সমাধান করেছে। সাপের পা নিয়ে গবেষণা পত্র লিখেছেন ড.হংগুইই। এ গবেষণা প্রকাশিত হয়েছিল সায়েন্স অ্যাডভান্সস জার্ণালে। তিনি এডিনবরা স্কুল অব জিওসায়েন্সেসের গবেষক। তিনি বলেন,এক সময় সাপের পা ছিলো। কিন্তু পা হারানোর বিষয়টি ঘটেছিলো যখন সাপের পূর্ব পুরুষ গর্তে প্রবেশ শুরু করে ছিলো। গবেষকরা ৯০ মিলিয়ন বছররের পুরনো ফসিল সিটি স্ক্যান করে দেখেন যে,সাপ মাটির সরু পথে প্রবেশ করার পরই তাদের পা এর প্রয়োজনীয়তা হারিয়ে ফেলে। এর আগে বিজ্ঞানীদের ধারণা ছিল সাপ যখন পানিতে বসবাস শুরু করে তখন তাদের পা অপ্রয়োজনীয় হয়ে পড়ে। আর এ ভাবেই সাপের পা বিলুপ্ত হয়ে যায়। এ ধরনের ধারণাকে অনেক গবেষক উড়িয়ে দিয়েছেন। অনেক গবেষকরা বলেন, সাপ যখন লম্বা দেহ নিয়ে মাটির সরু গর্তে প্রবেশ করা শুরু করে তখন তার পায়ের প্রয়োজন হয়না। বরং সরু গর্তে মধ্যে সাপের চলাচলের সময় পা বাধা সৃষ্টি করতে পারে। কেননা বেশিরভাগ সাপই মাটির গর্তেই বসবাস করে এবং শিকার করে বসেবসে খায়।

সম্প্রতি চীনে তিন নামে এক বয়ষ্ক মহিলার থাকার ঘরে রাতে একটি সাপ দেখতে পেয়ে ওই সাপটাকে মেরে ফেলেন। পরে তিনি লক্ষ করে দেখেন যে সাপটির একটি পা আছে। এর পর তিনি ১৬ ইঞ্চি লম্বা ওই সাপটিকে অ্যালকোহলের বোতলে সংরক্ষণ করে চীনের নানচাং প্রদেশের ওয়েস্ট নরমাল ইউনিভার্সিটির লাইফ সাইন্স ডিপার্টমেন্টে গবেষণার জন্য পাঠান। গবেষকদের ধারণা যে, এটি গুই প্রজাতির ও সাপের সংকর প্রজাতি।



এ পাতার আরও খবর

মিয়ানমারে সেনা ঘাঁটি দখল করে আগুন ধরিয়ে দিল বিদ্রোহীরা মিয়ানমারে সেনা ঘাঁটি দখল করে আগুন ধরিয়ে দিল বিদ্রোহীরা
বিসিএস ক্যাডার পরিচয়ে এক ডজন বিয়ে করলো তরুণী বিসিএস ক্যাডার পরিচয়ে এক ডজন বিয়ে করলো তরুণী
রিকশাচালকের ৬০০ টাকা কেড়ে নেয়ায় পুলিশের তিন সদস্য সাময়িক বরখাস্ত! রিকশাচালকের ৬০০ টাকা কেড়ে নেয়ায় পুলিশের তিন সদস্য সাময়িক বরখাস্ত!
চিলাহাটিতে অসহায় মানুষদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী, বস্ত্র ও টাকা বিতরণ চিলাহাটিতে অসহায় মানুষদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী, বস্ত্র ও টাকা বিতরণ
নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পৃথিবীর দিকে তীব্র গতিতে ধেয়ে আসছে চীনা রকেটের ১০০ ফুট অংশ নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পৃথিবীর দিকে তীব্র গতিতে ধেয়ে আসছে চীনা রকেটের ১০০ ফুট অংশ
কুষ্টিয়া পৌরসভার কর কর্মকর্তা বরখাস্ত নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম ইসলাম ওএসডি কুষ্টিয়া পৌরসভার কর কর্মকর্তা বরখাস্ত নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম ইসলাম ওএসডি
পুলিশকে চাঁদা দিয়ে না খেয়ে রোজা রাখলেন রিকশাওয়ালা পুলিশকে চাঁদা দিয়ে না খেয়ে রোজা রাখলেন রিকশাওয়ালা
একাধিক নারীর সঙ্গে বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্ক ছিল হেফাজত নেতা জাকারিয়ার একাধিক নারীর সঙ্গে বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্ক ছিল হেফাজত নেতা জাকারিয়ার
রাতভর আয়ের ৬০০ টাকা নিয়ে গেল পুলিশ, খালি হাতে বাড়ি ফিরলো রিকশাচালক শামীম রাতভর আয়ের ৬০০ টাকা নিয়ে গেল পুলিশ, খালি হাতে বাড়ি ফিরলো রিকশাচালক শামীম
এসআই আকবরের মৃ’ত্যুদ’ণ্ড হতে পারে! এসআই আকবরের মৃ’ত্যুদ’ণ্ড হতে পারে!

আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)
মিয়ানমারে সেনা ঘাঁটি দখল করে আগুন ধরিয়ে দিল বিদ্রোহীরা
বিসিএস ক্যাডার পরিচয়ে এক ডজন বিয়ে করলো তরুণী
রিকশাচালকের ৬০০ টাকা কেড়ে নেয়ায় পুলিশের তিন সদস্য সাময়িক বরখাস্ত!
চিলাহাটিতে অসহায় মানুষদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী, বস্ত্র ও টাকা বিতরণ
নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পৃথিবীর দিকে তীব্র গতিতে ধেয়ে আসছে চীনা রকেটের ১০০ ফুট অংশ
কুষ্টিয়া পৌরসভার কর কর্মকর্তা বরখাস্ত নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম ইসলাম ওএসডি
পুলিশকে চাঁদা দিয়ে না খেয়ে রোজা রাখলেন রিকশাওয়ালা
একাধিক নারীর সঙ্গে বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্ক ছিল হেফাজত নেতা জাকারিয়ার
এসআইয়ের ড্রয়ার থেকে ঘুষের আড়াই লাখ টাকা বের করলেন এএসপি
১০৩ তম প্রাইজ বন্ডের ড্র অনুষ্ঠিত
জনপ্রিয় সাংবাদিক নঈম নিজামের পেশাকে কলংকিত করতে চাচ্ছেন ওরা কারা ?
তালাক দিয়ে ৩৫ বিলিয়ন ডলারের মালিক হবেন মেলিন্ডা গেইটস
মমতার হ্যাটট্রিক
পদ্মায় স্পিডবোট ডুবি উদ্ধার অভিযান শেষ, ২৬ লাশ বুঝে নিয়েছে স্বজনেরা
বেগম খালেদা জিয়াকে সিসিইউতে স্থানান্তর করা হয়েছে
কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসকের সাথে কুষ্টিয়া সিটি প্রেসক্লাবের নেতৃবৃন্দের মত বিনিময়
পুলিশ সুপার পদে পদন্নোতি পেলেন কুষ্টিয়ার কৃতি সন্তান রকিবুল
চাকরি ছেড়ে ‘উন্নত’ জাল টাকা বানাতেন প্রকৌশলীরা
মহানবীকে (সা.) নিয়ে কটূক্তি, ইরানে দুজনের ফাঁসি
চিকিৎসা সরঞ্জাম কেনায় দুর্নীতি; কর্মকর্তাকে মৃত্যুদণ্ড দিল কিম