শিরোনাম:
●   কাফন মিছিলের পর শাবিতে এবার গণঅনশনের ডাক ●   ●   কুষ্টিয়ায় পরিবেশ বান্ধব জিকজাক ইট ভাটার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ওরা কারা ? ●   কুষ্টিয়ার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নবাসী তাদের প্রিয় নেত্রী সম্পা মাহমুদকে দলীয় মনোনয়ন দেয়ার দাবি জানিয়েছে ●   ঢাকাসহ সারাদেশে রেড অ্যালার্ট জারি ●   অবশেষে ‘‘সৈয়দ মাছ-উদ-রুমী সেতুুর’’ (গড়াই সেতু) টোলে পে-অর্ডারর জাতিয়াতির টাকা ফেরৎ দিল ব্যাংক ●   কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় মশাল প্রতীকের পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি ●   দৌলতপুরে কৃষি, ব্যাংক কর্মকর্তার ১৩ বছরের কারাদণ্ড ●   ‘একটি গোষ্ঠী ঘটনার জন্ম দিয়ে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষতিগ্রস্ত করতে চায়’ ●   আবরারের মাও যেন বলতে পারে, ‘ন্যায়বিচার পেয়েছি
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ১৬ আষাঢ় ১৪২৯

Bijoynews24.com
মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১
প্রথম পাতা » অর্থ-বাণিজ্য-কৃষি | জাতীয় সংবাদ | বক্স্ নিউজ | রংপুর | রাজনীতি | শিরোনাম » মাটির উর্বরতা ধরে রাখতে ডোমারের বিএডিসি খামারে ধইনঞ্চা চাষ
প্রথম পাতা » অর্থ-বাণিজ্য-কৃষি | জাতীয় সংবাদ | বক্স্ নিউজ | রংপুর | রাজনীতি | শিরোনাম » মাটির উর্বরতা ধরে রাখতে ডোমারের বিএডিসি খামারে ধইনঞ্চা চাষ
মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

মাটির উর্বরতা ধরে রাখতে ডোমারের বিএডিসি খামারে ধইনঞ্চা চাষ

---
রুহানা ইসলাম ইভা.

ডোমার উপজেলা প্রতিনিধিঃ রাসায়নিক সারের ব্যবহার বেশি হওয়ার কারনে দিনদিন মাটির উর্বরতা কমছে। আর যার কারনেই ফসলের উৎপাদনে ব্যপক পরিমান ঘাটতি হচ্ছে। রাসায়নিক সারের এই অপরিকল্পিত ও বেশি ব্যবহারের কারনেই মাটির উর্বরতা নষ্ট হচ্ছে এবং তার সাথে কৃষি পন্যের খরচও অনেক বৃদ্ধি পাচ্ছে। এবং বর্তমানে এই করোনা পরিস্থিতিতে একজন প্রান্তিক কৃষকের পক্ষে সেই খরচ বহন করা সম্ভব নয়। কৃষিতে খরচ কমানো ও মাটির উর্বরতা বজায় রাখার জন্য নীলফামারী জেলার ডোমার উপজেলার বিএডিসি এক প্রশংসনীয় কাজ করে আসছে। মাটির উর্বরতা যাতে নষ্ট না হয়, ফসল উৎপাদনে অধিক অর্থ ব্যয় রোধে এবং মাটির গুনগত মান ঠিক রাখার জন্য ডোমার ভিত্তি বীজআলু উৎপাদন খামারে (বিএডিসি) ব্যপক হারে ধইনঞ্চা চাষ করে আসছে। ধইনঞ্চা চাষের ব্যপারে ডোমার ভিত্তি বীজআলু উৎপাদন খামার (বিএডিসি)-এর উপ-পরিচালক কৃষিবীদ আবু তালেব মিঞার সাথে কথা হলে তিনি জানান,“প্রায় ২১ বছর ধরে আমরা ধইনঞ্চা চাষ করে আসছি। ফসলের জীবনচক্র সঠিকভাবে সম্পূর্ণ হওয়ার জন্য ১৭টি গুরুত্বপূর্ণ উপাদানের প্রয়োজন। এসব উপাদান বাতাস ও মাটি থেকে সংগ্রহ করে ধইনঞ্চা গাছ। বর্তমান চলতি মৌসুমে খামারের ৩ শত ৫০ একর জমিতে ধইনঞ্চা চাষ করা হয়েছে। ধইনঞ্চা চাষ করার জন্য বাড়তি কোন খরচ নেই। শুধু হালচাষ করতে ও বীজ কিনতে যা খরচ হয়। এই ধইনঞ্চা গাছ ৫৫ থেকে ৬০ দিনের মধ্যেই প্রক্রিয়াকরনের মাধ্যমে মাটির খাদ্য হিসেবে উপযোগী হয়ে উঠে। মাটির জীবনীশক্তি পুনঃরুদ্ধান, কাঙ্খিত উৎপাদন, পরিবেশের ভারসাম্য বৃদ্ধি, মাটির উর্বরতা বজায় রাখা, মাটির স্বাস্থ্য রক্ষা ও জৈব সার হিসেবে মাটিতে ব্যবহার করা। ধইনঞ্চা হেক্টর প্রতি ২৫ থেকে ৩০ টন উৎপাদন হয়। যা ১০০ থেকে ১৫০ কেজি নাইট্রোজেন সরবারহ করে এবং ২২০ থেকে ২৫০ কেজি ইউরিয়া সারের কাজও করে। এই তথ্যগুলো আমরা আপনাদের মাধ্যমে প্রান্তিক কৃষকদের কাছে পৌছে দিতে চাই। কারন, ধইনঞ্চা চাষ করে যেমন মাটির স্বাস্থ্য ও উর্বরতা রক্ষা করা যাবে। তেমনি ধইনঞ্চা গাছ সারের সমতুল্য কাজ করবে। এবং এতে খরচ অনেকটাই কমে যাবে। বর্তমানে জমিতে বিভিন্ন ধরনের রাসায়নিক সার ও কীটনাশক ব্যবহার করা হয়। রাসায়নিক সার ও কীটনাশকের ব্যবহার কমানোর জন্যই আমরা এই উদ্দ্যোগ গ্রহন করেছি। তাছাড়া জৈব সার ব্যবহার করলে ফসল রোগমুক্ত থাকে। তাই সকল কৃষকদের কাছে অনুরোধ তারা যেন এই উদ্দ্যোগ গ্রহন করে এবং রাসায়নিক সার ও কীটনাশকের ব্যবহার কমিয়ে দেয়”।

 

ডোমারে পুকুর খনন করতে গিয়ে কৃষ্ণ মূর্তি উদ্ধার

---

রুহানা ইসলাম ইভা.

ডোমার উপজেলা প্রতিনিধিঃ নীলফামারী জেলার ডোমার উপজেলায় পুকুর খননের সময় প্রাচীন কালের একটি কৃষ্ণমূর্তি পাওয়া গেছে। রবিবার দুপুরে উক্ত ডোমার উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের যুবলীগ নেতা মজিবুল ইসলাম ও ব্যবসায়ী জাহিনুর ইসলামসহ মিলে ডোমার থানা পুলিশ প্রশাসনের কাছে মূর্তিটি হস্তান্তর করা হয়। জানা যায়, গত শুক্রবার বিকালে ডোমার উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের চিকারহাট নামক স্থানে আহম্মদর হোসেনের ছেলে রুবেল ইসলামের পুকুর খননের সময় সোনারায় টংবান্ধা এলাকার নুরুল হকের ছেলে সামুন ইসলাম পিতলের মুর্তিটি পায়। মূহুর্তে খবরটি ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয় লোকজন এক নজর মূর্তিটি দেখার জন্য ভীড় জমায়।
সামুন জানান, প্রতিদিনের ন্যায় ট্রাক্টরে মাটি তুলতে যায় ওই পুকুরে। এ সময় ধাতব জাতীয় একটি মূর্তি বেরিয়ে আসে। মূর্তিটি  এলাকার কয়েকজন ব্যক্তিকে দেখালে তারা কৃষ্ণমূর্তি বলে জানান। অনেকে মূর্তিটি ক্রয় করতে চাইলেও রাজি হয়নি সামুন। অর্থের লোভ না করে মূর্তিটি প্রশাসনের কাছে জমা দেয়ার সিন্ধান্ত গ্রহন করে। পরে মূর্তি পাওয়ার বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিনা শবনমকে অবগত করেন সামুন ইসলাম।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিনা শবনম বলেন, মূর্তি পাওয়ার বিষয়টি আমাকে অবগত করেছে । আমি সেটি থানায় জমা দিতে বলেছি। রবিবার দুপুরে ডোমার থানা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) বিশ্বদেব রায় ও এসআই সাইফুল ইসলাম সামুনের কাছে গেলে সামুন সকলের সামনে কৃষ্ণ মূর্তিটি প্রশাসনের কাছে হস্তান্তর করে। থানা অফিসার ইনচার্জ মোস্তাফিজার রহমান বলেন, মূর্তিটি ওজন সাড়ে ১৭ ভরি। বর্তমানে আমাদের কাছে জমা রয়েছে। কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে সরকারী ভাবে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।



এ পাতার আরও খবর

কুষ্টিয়ায় পরিবেশ বান্ধব জিকজাক ইট ভাটার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ওরা কারা ? কুষ্টিয়ায় পরিবেশ বান্ধব জিকজাক ইট ভাটার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ওরা কারা ?
কুষ্টিয়ার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নবাসী তাদের প্রিয় নেত্রী সম্পা মাহমুদকে দলীয় মনোনয়ন দেয়ার দাবি জানিয়েছে কুষ্টিয়ার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নবাসী তাদের প্রিয় নেত্রী সম্পা মাহমুদকে দলীয় মনোনয়ন দেয়ার দাবি জানিয়েছে
ঢাকাসহ সারাদেশে রেড অ্যালার্ট জারি ঢাকাসহ সারাদেশে রেড অ্যালার্ট জারি
অবশেষে ‘‘সৈয়দ মাছ-উদ-রুমী সেতুুর’’ (গড়াই সেতু) টোলে পে-অর্ডারর জাতিয়াতির টাকা ফেরৎ দিল ব্যাংক অবশেষে ‘‘সৈয়দ মাছ-উদ-রুমী সেতুুর’’ (গড়াই সেতু) টোলে পে-অর্ডারর জাতিয়াতির টাকা ফেরৎ দিল ব্যাংক
কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় মশাল প্রতীকের পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় মশাল প্রতীকের পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি
দৌলতপুরে কৃষি, ব্যাংক কর্মকর্তার ১৩ বছরের কারাদণ্ড দৌলতপুরে কৃষি, ব্যাংক কর্মকর্তার ১৩ বছরের কারাদণ্ড
‘একটি গোষ্ঠী ঘটনার জন্ম দিয়ে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষতিগ্রস্ত করতে চায়’ ‘একটি গোষ্ঠী ঘটনার জন্ম দিয়ে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষতিগ্রস্ত করতে চায়’
আবরারের মাও যেন বলতে পারে, ‘ন্যায়বিচার পেয়েছি আবরারের মাও যেন বলতে পারে, ‘ন্যায়বিচার পেয়েছি
সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদ শাহবাগে ‘গণঅনশন ও অবস্থান’ কর্মসূচিতে সংখ্যালঘুদের ৮ দফা দাবি সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদ শাহবাগে ‘গণঅনশন ও অবস্থান’ কর্মসূচিতে সংখ্যালঘুদের ৮ দফা দাবি

আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)
কুষ্টিয়ায় পরিবেশ বান্ধব জিকজাক ইট ভাটার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ওরা কারা ?
কুষ্টিয়ার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নবাসী তাদের প্রিয় নেত্রী সম্পা মাহমুদকে দলীয় মনোনয়ন দেয়ার দাবি জানিয়েছে
ঢাকাসহ সারাদেশে রেড অ্যালার্ট জারি
অবশেষে ‘‘সৈয়দ মাছ-উদ-রুমী সেতুুর’’ (গড়াই সেতু) টোলে পে-অর্ডারর জাতিয়াতির টাকা ফেরৎ দিল ব্যাংক
কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় মশাল প্রতীকের পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি
দৌলতপুরে কৃষি, ব্যাংক কর্মকর্তার ১৩ বছরের কারাদণ্ড
‘একটি গোষ্ঠী ঘটনার জন্ম দিয়ে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষতিগ্রস্ত করতে চায়’
আবরারের মাও যেন বলতে পারে, ‘ন্যায়বিচার পেয়েছি
সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদ শাহবাগে ‘গণঅনশন ও অবস্থান’ কর্মসূচিতে সংখ্যালঘুদের ৮ দফা দাবি
আজ বিআরবি কেবল ইন্ড্রাষ্টিজ লিমিটেড এর ৪৩ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী
কুষ্টিয়া জেলা প্রেসক্লাবের অভিনন্দন
মণ্ডপে হামলা : উস্কানিদাতা ইসলামিক বক্তা গ্রেপ্তার
প্রেমিককে স্বামী বানিয়ে প্রবাসীর সম্পদ লিখে নেন সাকুরা
আবারও বাড়ছে ভোজ্যতেলের দাম
তথ্য প্রতিমন্ত্রীকে সাঈদ খোকনের চ্যালেঞ্জ ইসলাম ত্যাগ করেন, দুই দিনও মন্ত্রী থাকতে পারবেন না
কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে আপত্তিকর অবস্থা থেকে পালাতে গিয়ে ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে যুবকের মৃত্যু
কুষ্টিয়া প্রেসক্লাব কেপিসির নবনির্বাচিত কমিটির দায়িত্ব গ্রহণ ও শপথ অনুষ্ঠিত
চিলাহাটি গার্লস্ স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষের প্রদায়ন ও নবাগত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠিত
স্বামী বিদেশে নেওয়ার আগেই রাতের আধারে প্রেমিকের সঙ্গে পালালেন স্ত্রী