শিরোনাম:
ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ জুন ২০১৮, ৫ আষাঢ় ১৪২৫
Bijoynews24.com
প্রথম পাতা » Slider » মৌলভীবাজারে একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধ : ২ জনের ফাঁসি, ৩ জনের আমৃত্যু কারাদন্ড
বুধবার ● ১০ জানুয়ারী ২০১৮
Email this News Print Friendly Version

মৌলভীবাজারে একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধ : ২ জনের ফাঁসি, ৩ জনের আমৃত্যু কারাদন্ড

---মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার : একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধে মৌলভীবাজার জেলার রাজনগর উপজেলার দক্ষিণখোলা গ্রামে গণহত্যার দায়ে রাজাকার নেসার আলী ও ওজায়ের আহমেদ চৌধুরীকে মৃত্যুদন্ড দিয়েছেন আন্তর্জাতিক  অপরাধ ট্রাইব্যুনাল আদালত। অভিযুক্ত অপর ৩জনকে আমৃত্যু কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে। আজ ১০ জানুয়ারি সকালে বিচারপতি শাহীনুর আলমের নের্তৃত্বে তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল আদালত এ রায় প্রদান করেন। বেলা সাড়ে ১০টার আদালত বসার পর মৌলভীবাজারের পাঁচ আসামির রায়ের কার্যক্রম শুরু হয়। গ্রেপ্তার দুই আসামিকে তার আগেই কারাগার থেকে আদালতে নিয়ে আসা হয়।রায়ের সারসংক্ষেপে বলা হয়- প্রসিকিউশনের আনা ৫ অভিযোগের সবগুলোই প্রমাণিত হয়েছে। মৃত্যুদন্ড প্রাপ্ত দুই আসামির সাজা ফাঁসিতে ঝুলিয়ে কার্যকর করতে হবে। সেই সঙ্গে পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তার করে সাজা কার্যকর করতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও পুলিশের আইজিকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। ট্রাইব্যুনালের মামলায় রায়ের এক মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ আদালতে আপিল করা যায়। তবে পলাতক আসামিদের সে সুযোগ নিতে হলে আত্মসমর্পণ করতে হবে। অভিযোগ গঠনের মধ্য দিয়ে ২০১৬ সালের ৮ ডিসেম্বর এ মামলার পাঁচ আসামির বিচার শুরু করে আদালত। এ পর্যন্ত রায় আসা ৩০টি মামলার ৬৭ আসামির মধ্যে ৩জন  বিচারাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। মোট ৬৪ জনের সাজা হয়েছে, যাদের মধ্যে ৩৮ যুদ্ধাপরাধীর সর্বোচ্চ সাজার রায় এসেছে। কোন অপরাধে কী সাজা ঃ অভিযোগ (১) মৌলভীবাজারের রাজনগর থানার বালিগাঁও গ্রামের  মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক  দানু মিয়াকে অপহরণ, আটকে রেখে নির্যাতন, হত্যা, বাড়িতে লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ। সামছুল হোসেন তরফদার ওরফে আশরাফ, মো. নেছার আলী, ইউনুছ আহমেদ, উজের আহমেদ চৌধুরী ও মোবারক মিয়া সবার আমৃত্যু কারাদন্ড। অভিযোগ (২) ফকিরতোলা ও রাজাপুর গ্রামে ডা. যামিনী মোহনকে অপহরণ, আটকে রেখে নির্যাতন ও হত্যা; বাড়িতে লুটপাট  নেছার, ইউনুছ ও উজের  সবার আমৃত্যু কারাদন্ড। অভিযোগ (৩) রাজনগর থানার উত্তরবাগ গ্রামে ৩ জনকে তুলে নিয়ে আটকে রেখে নির্যাতন, বাড়িতে লুটপাট । নেছার, ইউনুছ ও উজের  ইউনুছ খালাস, বাকি দুজনের ৫ বছরের সাজা। অভিযোগ (৪) নয়াটিলা গ্রামে নোজাবত আলী ও আবদুল বাসিতকে অপহরণ, আটকে রেখে নির্যাতন ও হত্যা; বাড়িতে লুটপাট, অগ্নিসংযোগ। সামছুল, নেছার, ইউনুছ, উজের ও মোবারক  সবার আমৃত্যু কারাদন্ড। অভিযোগ (৫) নয়াটিলা গ্রামে কয়েক ডজন হিন্দু বাড়িতে লুটপাট, অগ্নিসংযোগ, মন্দির ভাংচুর, আটকে রেখে নির্যাতন ও গণহত্যা । সামছুল, নেছার, ইউনুছ, উজের ও মোবারক নেছার ও উজেরের মৃত্যুদন্ড, বাকিদের আমৃত্যু সাজা তিন সদস্যের এ ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি শাহিনুর ইসলাম প্ররারম্ভিক বক্তব্যে জানান- এ মামলায় তারা যে রায় দিচ্ছেন, তা ২০২ পৃষ্ঠার। পরে ট্রাইব্যুনালের বিচারক আবু আহমেদ জমাদার রায়ের সার সংক্ষেপের প্রথম অংশ পড়া শুরু করেন। বিচারপতি আমির হোসেন পড়েন রায়ের দ্বিতীয় অংশ। সবশেষে ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান সাজা ঘোষণা করেন। রায়ের পর আসামি ইউনুছ আহমেদ ও  উজের আহমেদ চৌধুরীকে আদালত থেকে কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়। মামলার ইতিবৃত্ত ঃ ২০১৪ সালের ১২ অক্টোবর ওই ৫ আসামির বিরুদ্ধে তদন্ত শুরুর পর ২০১৬ সালের ২৬ মে  ট্রাইব্যুনালে আনুষ্ঠানিক অভিযোগ দাখিল করে প্রসিকিউশন। আসামিদের মধ্যে সামছুল হোসেন তরফদার একাত্তরে আল-বদর বাহিনীর এবং নেছার আলী রাজাকার বাহিনীর স্থানীয় কমান্ডার ছিলেন। বাকি তিনজন রাজাকার বাহিনীর সদস্য হিসেবে বিভিন্ন যুদ্ধাপরাধে লিপ্ত হন। প্রসিকিউশনের আবেদনে ২০১৬ সালের ১৩ অক্টোবর ট্রাইব্যুনাল আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করে। ওইদিন বিকালেই রাজনগর উপজেলার গয়াসপুর গ্রামের উজের আহমেদ চৌধুরীকে মৌলভীবাজার শহরের চৌমোহনা থেকে ও ইউনুছ আহমদকে তার সোনাটিকি গ্রামের বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। একই বছর ৮ ডিসেম্বর আদালত আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের মধ্য দিয়ে বিচার শুরু হয়।  ২০১৭ সালের ১৫ জানুয়ারি শুরু হয় সাক্ষ্যগ্রহণ। আদালতে এ মামলায় রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন প্রসিকিউটর সুলতান মাহমুদ সীমন ও তাপস কান্তি বল।  আর ইউনুছের পক্ষে আইনজীবী আবদুস সোবহান তরফদার ও ওজায়েরের পক্ষে আইনজীবী মুজাহিদুল ইসলাম। দুই পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে গত বছরের ২০ নভেম্বর ট্রাইব্যুনাল মামলাটির রায়ের জন্য অপেক্ষমাণ (সিএভি) রাখে।


দুঃস্থ-শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ

নীলফামারী জেলা রিপোর্টার্স ইউনিটির উদ্যোগে কম্বল বিতরণ


পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)
রহস্যজনক সড়ক দুর্ঘটনায় দশ ট্রাক অস্ত্র মামলার বাদী নিহত
পেনাল্টি গোলে দ. কোরিয়াকে হারালো সুইডেন
মেয়েকে কুপ্রস্তাব, স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে দিলেন স্ত্রী!
সেনা প্রধান হলেন জেনারেল আজিজ আহমেদ
যশোরে দু’গ্রুপের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক ব্যবসায়ী নিহত
ময়মনসিংহে নারী ‘মাদক ব্যবসায়ীর’ গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার
জকিগঞ্জের বন্যা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে : দেড় লক্ষাধিক মানুষ পানিবন্দী
গড়াই নদী থেকে তরু‌ণের ভাসমান লাশ উদ্ধার
দাকোপে পরকীয়ার ঘটনায় স্বামীর পিটুনিতে স্ত্রীসহ প্রেমিক আহত
মেসির পেনাল্টি মিস, আর্জেন্টিনাকে রুখে দিল আইসল্যান্ড
আফগানিস্তানে আত্মঘাতী হামলায় নিহত ২৫
দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রীর
এটিএন বাংলায় ইভা রহমানের একক সংগীতানুষ্ঠান
রাশিয়ান সুন্দরী এম্বাসেডরের সতর্কতা
কারাফটকের আগেই ব্যারিকেড, সাক্ষাত পেলেন না বিএনপি নেতারা
গণভবনে জনসাধারণের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময়
বায়তুল মোকাররমে ঈদের প্রথম জামাত অনুষ্ঠিত
বাড্ডায় আওয়ামী লীগ নেতাকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা
আত্মঘাতী গোলে হারলো মরক্কো
রোনালদোর হ্যাটট্রিক