শিরোনাম:
ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ জুন ২০১৮, ৫ আষাঢ় ১৪২৫
Bijoynews24.com
প্রথম পাতা » Slider » রাজশাহী ইউআইটিএসের প্রতারণায় থমকে গেছে বহু শিক্ষার্থীর জীবন
শনিবার ● ৬ জানুয়ারী ২০১৮
Email this News Print Friendly Version

রাজশাহী ইউআইটিএসের প্রতারণায় থমকে গেছে বহু শিক্ষার্থীর জীবন


---হাবিব জুয়েল, রাজশাহী:: বিশ্ব বিশ্ববিদ্যালয়। এটি একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম। এ রকম বাহারি নামের বিশ্ববিদ্যালয় এখন দেশের সর্বত্র ছড়িয়ে আছে।বিশ্ববিদ্যালয় যেন পারিবারিক ব্যবসা কেন্দ্র! সরকারি সংশ্লিষ্ট দপ্তরগুলো এসবের খোঁজ রাখে না। উচ্চশিক্ষার নামে চলছে সনদ বিক্রি। নেই মনিটরিং, নেই কোনো নিয়ন্ত্রণ। মাঝে মাঝে সরকারি উদ্যোগ দেখা যায়, কালো তালিকাভুক্ত হয় বিশ্ববিদ্যালয়গুলো। জুড়ে দেয়া হয় শর্ত। কিন্তু উচ্চ আদালতের স্থগিতাদেশ নিয়ে কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে উচ্চশিক্ষার এই বিদ্যালয়গুলো। ধারাবাহিক অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের আজ প্রথম পর্ব প্রকাশিত হলো।

রাজশাহীতে  বেসরকারি ইউনিভার্সিটি অব ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সায়েন্স (ইউআইটিএস) রাজশাহী ক্যাম্পাস থেকে ভুয়া সনদ দেওয়ার প্রতিবাদে ও পরিচালকের অপসারণের দাবিতে ২০১৩ সালের জানুয়ারি মাসে বিক্ষোভ ও ভাঙচুর করেছিল শিক্ষার্থীরা। দফায় দফায় বিক্ষোভ ও ভাঙচুর চালানো হয়।পরে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভের মুখে আগামী ৭ দিনের মধ্যে তাদের দাবি-দাওয়া বাস্তবায়নের আশ্বাস দেওয়াও হয়। একই সঙ্গে এসময় পর্যন্ত ক্যাম্পাস বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছিল।

সেদিন প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছিল, বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে ইউআিইটিএসর কয়েক হাজার শিক্ষার্থী রাজশাহী মহানগরীর ফায়ার সার্ভিস মোড় এলাকায় অবস্থিত রাজশাহী শাখা ক্যাম্পাসে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ শুরু করে। একপর্যায়ে তারা ক্যাম্পাসের বিভিন্ন আসবাবপত্রসহ জানালা-দরজার গ্লাস ভাঙচুর করতে থাকে। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এদিকে, মহানগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার ওসি জিয়াউর রহমান জিয়া গণমাধ্যমকে বলেছিলেন, শিক্ষার্থীদের আন্দোলন ও উদ্ভুত পরিস্থিতিতে ইউআইটিএস রাজশাহী ক্যাম্পাসের কর্তৃপক্ষকে তাদের সকল কাগজপত্র নিয়ে বুধবার রাতে থানায় তলব করা হলেও তারা আসেননি।

কিন্তু অদৃশ্য কারণে মামলাও নেননি ওসি জিয়াউর রহমান জিয়া।

সে যায় হোক,তাহলে কি শিক্ষার্থীরা তাদের সঠিক সনদ পেয়েছিল নাকি এখনোও ঝুলে আছে সেই সনদ ? হ্যা পাঠক ঠিকই ধরেছেন, শিক্ষার্থীরা অনেকেই এখনো পাননি তাদের সনদ।

অনুসন্ধানে জানা যায়, ইউনিভার্সিটি অব ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সায়েন্স (ইউআইটিএস) রাজশাহী ক্যাম্পাসের তৎকালীন গ্রান্ড ফাদার আরমান আলী সহ তার সহকারী সামশুল আলম বাদশা এবং বানেশ্বর ডিগ্রি কলেজের মনোবিজ্ঞানের জাহাঙ্গীর নামক এক শিক্ষকও দুর্নীতির মায়াজালে জড়িয়ে পড়েন।

এদিকে এ বিষয়ে, দুদক রাজশাহী কার্যালয়ের উপ-পরিচালক শেখ ফাইয়াজ আলম বলেন - সম্প্রতি একজন সরকারি শিক্ষা কর্মকর্তাকে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের বৃত্তি নিয়ে বড় ধরনের অনিয়মের কারণে গ্রেপ্তার করা হয় তবে তারা কেন বাদ যাবেন…? কেউ আইনের উর্ধে নয়। দুদকের প্রতি আমরা মানুষের আস্থা ফেরাতে চাই।…..পরবর্তী সংখ্যায় বিস্তারিত

 

 

রাজশাহীতে গৃহবধূ উদ্ধার: আটক

হাবিব জুয়েল, রাজশাহী:: রাজশাহী নগরীতে অপহরণের শিকার গৃহবধূকে উদ্ধার করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে নগরীর শালবাগান এলাকার প্রফেসর পাড়ার একটি বাড়ি থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়। এসময় অপহরণকারী শাখাওয়াত হোসেন শিশিরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

 বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমানুল্লাহ জানান, মোবাইল ফোনকলের সূত্র ধরে শালবাগান এলাকায় অভিযান চালিয়ে অপহৃত নববধূকে উদ্ধার করা হয়। এসময় গ্রেপ্তারকৃত শিশির মেয়েটিকে নিজের স্ত্রী বলে দাবি করেন। অনেক আগেই পরিবারের সদস্যদের না জানিয়ে তাদের গোপনে বিয়ে হয় বলে দাবি করে শিশির।

বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানান ওসি।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নগরীর উপশহর এলাকা থেকে অপহরণের শিকার হয়েছিলেন ওই গৃহবধূ। এ ঘটনায় অপহরণের শিকার গৃহবধূর স্বামী বাদি হয়ে বৃহস্পতিবার রাতে একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেছেন। মামলার বরাত দিয়ে পুলিশের এই কর্মকর্তা জানান, অপহরণের শিকার ওই গৃহবধূ উপশহর এলাকার একটি কোচিং সেন্টারে শিক্ষকতা করতেন। বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টার দিকে সে ক্লাস নেয়ার জন্য কোচিং-এ যায়। রাত ৮টার দিকে কোচিং সেন্টারের বাইরে থেকে শিশির নামে রাজশাহীর ইসলামী ব্যাংক মেডিক্যাল কলেজের এক ছাত্র ওই গৃহবধূকে জোরপূর্বক মাইক্রোবাসে তুলে নিয়ে পালিয়ে যায়।

রাত ৯টার দিকে ভূক্তভোগী গৃহবধূ মোবাইল ফোনে এসএমএস-এর মাধ্যমে তার স্বামীকে এ খবর দেয়। তারপর থেকেই তার মোবাইল ফোনটি বন্ধ ছিলো। এর আগে গত মঙ্গলবার রাতে নগরীর শালবাগান এলাকায় তার বিয়ে হয়।


প্রচলিত শিক্ষা ব্যবস্থা বেকার তৈরির কারখানা: মোস্তাফা জব্বার

জটিল রোগের ঔষধি মাশরুম উৎপাদন কেন্দ্র নীলফামারীর সৈয়দপুরে


পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)
রহস্যজনক সড়ক দুর্ঘটনায় দশ ট্রাক অস্ত্র মামলার বাদী নিহত
পেনাল্টি গোলে দ. কোরিয়াকে হারালো সুইডেন
মেয়েকে কুপ্রস্তাব, স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে দিলেন স্ত্রী!
সেনা প্রধান হলেন জেনারেল আজিজ আহমেদ
যশোরে দু’গ্রুপের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক ব্যবসায়ী নিহত
ময়মনসিংহে নারী ‘মাদক ব্যবসায়ীর’ গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার
জকিগঞ্জের বন্যা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে : দেড় লক্ষাধিক মানুষ পানিবন্দী
গড়াই নদী থেকে তরু‌ণের ভাসমান লাশ উদ্ধার
দাকোপে পরকীয়ার ঘটনায় স্বামীর পিটুনিতে স্ত্রীসহ প্রেমিক আহত
মেসির পেনাল্টি মিস, আর্জেন্টিনাকে রুখে দিল আইসল্যান্ড
আফগানিস্তানে আত্মঘাতী হামলায় নিহত ২৫
দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রীর
এটিএন বাংলায় ইভা রহমানের একক সংগীতানুষ্ঠান
রাশিয়ান সুন্দরী এম্বাসেডরের সতর্কতা
কারাফটকের আগেই ব্যারিকেড, সাক্ষাত পেলেন না বিএনপি নেতারা
গণভবনে জনসাধারণের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময়
বায়তুল মোকাররমে ঈদের প্রথম জামাত অনুষ্ঠিত
বাড্ডায় আওয়ামী লীগ নেতাকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা
আত্মঘাতী গোলে হারলো মরক্কো
রোনালদোর হ্যাটট্রিক